‘সিক্স আই ফোন’ ও ‘বাডস এয়ার নিও’ নিয়ে এলো রিয়েলমি

বাংলাদেশের বাজারে ‘রিয়েলমি সিক্স আই ফোন’ ও ‘বাডস এয়ার নিও’ নিয়ে এলো প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান রিয়েলমি। রবিবার (২১ জুন) অনলাইনে এগুলো উন্মুক্ত করেছে প্রতিষ্ঠানটি। এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানিয়েছে রিয়েলমি।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়,  সিক্স আই ফোনে রয়েছে মিডিয়াটেকের হেলিও জি-৮০ চিপসেট, ৪৮ মেগাপিক্সেলের এআই কোয়াড ক্যামেরা, ১৮ ওয়াটের কুইক চার্জ এবং ৫ হাজার মিলিঅ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি। ২২ জুন থেকে অনলাইনে এবং ২৩ জুন থেকে সব স্মার্টফোন স্টোরে মাত্র ১৬ হাজার ৯৯০ টাকায় রিয়েলমি সিক্স আই ফোন পাওয়া যাবে। পাশাপাশি রিয়েলমি’র ট্রেন্ডসেটার প্রতিযোগিতায় অংশ নিলে জেতা যাবে রিয়েলমি সিক্স আই।

রিয়েলমি বাংলাদেশের ব্র্যান্ডিং ডিরেক্টর নিয়ন শি বলেন, ‘বাংলাদেশে প্রথম শক্তিশালী জি-৮০ চিপসেটের স্মার্টফোন রিয়েলমি সিক্স আই – এর পাশাপাশি আমাদের প্রথম অডিও স্মার্ট এআইওটি ডিভাইস ‘বাডস এয়ার নিও’ আনতে পেরে আমরা আনন্দিত। ট্রেন্ডসেটিং লাইফস্টাইলের পপুলাইজার হিসেবে আমাদের মূল লক্ষ্য তরুণদের সৃজনশীলতা তুলে ধরতে তাদের জন্য কাজ করা এবং তাদের পছন্দের তালিকায় শীর্ষস্থানে পৌঁছানোর জন্য নিরবচ্ছিন্নভাবে কাজ করে যাওয়া।’

রিয়েলমি সিক্স আই

রিয়েলমি সিক্স আই-তে মিডিয়াটেকের হেলিও জি-৮০ চিপসেট ব্যবহার করা হয়েছে। অক্টা-কোর প্রসেসরে ২.০ গিগাহার্টজ গতিতে কাজ করার পাশাপাশি মালি-জি৫২ জিপিইউ দিবে ৯৫০ মেগাহার্টজের বুস্ট, যা গেমিংয়ে দেবে ভালো পারফরম্যান্স।

এআই  কোয়াড ক্যামেরা সেটআপে আছে ৪৮ মেগাপিক্সেলের প্রাথমিক ক্যামেরা, ৮ মেগাপিক্সেলের ১১৯°  আল্ট্রা-ওয়াইড-অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা, ২ মেগাপিক্সেলের সাদা-কালো পোর্ট্রেট লেন্স এবং ৪ সেমি ম্যাক্রো লেন্স। ১৬ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা সিক্স আই-তে আছে ৫ হাজার মিলিঅ্যাম্পিয়ারের ব্যাটারি। পাশাপাশি থাকছে ইউএসবি টাইপ-সি চার্জিং পোর্ট, যা ১৮ ওয়াটের কুইক এবং রিভার্স চার্জিং এর সুবিধা। ৪ গিগাবাইট র‍্যাম এবং ১২৮ গিগাবাইট রমে মিল্ক হোয়াইট এবং গ্রিন টি – এই দুই রঙে সিক্স আই পাওয়া যাবে।

রিয়েলমি বাডস এয়ার নিও

রিয়েলমি বাডস এয়ার নিও-তে ব্যবহার করা হয়েছে আর ওয়ান অডিও চিপসেট, যা ফোনের সঙ্গে নিরবচ্ছিন্ন ও স্থিতিশীল সংযোগ নিশ্চিত করবে। মাত্র ১১৯.২ মিলিসেকেন্ডের সুপার লো ল্যাটেন্সিতে গেমিং বা সিনেমা দেখার সময় ভিডিও এবং অডিও মাঝে নিখুঁত মেলবন্ধন তৈরি করবে। চমকপ্রদ অডিও অভিজ্ঞতার জন্য ১৩ মিলিমিটারের বড় উন্নত মানের পলিইউরেথেন ও টাইটানিয়ামের বেস বুস্ট ড্রাইভার ব্যবহার করা হয়েছে। একবার চার্জে টানা তিন ঘণ্টা গান শোনা যাবে।

 





সম্পূর্ণ রিপোর্টটি প্রথম আলোতে পড়ুন

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

%d bloggers like this: