করোনা মোকাবিলায় নিজেদের পদক্ষেপ পর্যালোচনা করবে ডব্লিউএইচও

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) জানিয়েছে, করোনাভাইরাস মহামারি মোকাবিলায় সংস্থাটির নিজেদের ও বিভিন্ন দেশের সরকারের গৃহীত পদক্ষেপ পর্যালোচনার জন্য একটি স্বাধীন প্যানেল গঠন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার এক ভার্চুয়াল বৈঠকে এই তথ্য জানিয়েছেন সংস্থাটির প্রধান টেড্রোস আডানম গেব্রিউসাস। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স এখবর জানিয়েছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ও তার প্রশাসনের পক্ষ থেকে ডব্লিউএইচওকে চীন-কেন্দ্রিক হয়ে পড়ার অভিযোগ এবং আনুষ্ঠানিকভাবে সংস্থাটি থেকে যুক্তরাষ্ট্রের বেরিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্তের পর এই পদক্ষেপ নিলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।
গেব্রিউসাস জানান, নিউ জিল্যান্ডের সাবেক প্রধানমন্ত্রী হেলন ক্লার্ক ও লাইবেরিয়ার সাবেক প্রেসিডেন্ট এলেন জনসন সারলিফ প্যানেলের প্রধান ও সদস্য নির্বাচনের জন্য সম্মতি দিয়েছেন।
ডব্লিউএইচও’র ১৯৪টি সদস্য রাষ্ট্রের প্রতিনিধিদের ভার্চুয়াল বৈঠকে সংস্থাটির প্রধান বলেন, বিষয়টি এমন হেলাফেলার মতো কিছু নয় যেমনটি আমরা সাধারণ প্রতিবেদনের ক্ষেত্রে তাকে ফেলে রাখি ধূলো জমার জন্য। এই বিষয়টি আমরা গুরুত্বের সঙ্গে নিচ্ছি।
মহাপরিচালক জানান, নভেম্বরে অনুষ্ঠিতব্য স্বাস্থ্যমন্ত্রীদের বার্ষিক সম্মেলনে প্যানেল অন্তর্বর্তী প্রতিবেদন হাজির করবে।
বৈঠকে উপস্থিত হয়ে নিউ জিল্যান্ডের সাবেক প্রধানমন্ত্রী হেলন ক্লার্ক বলেন, এই দায়িত্ব চ্যালেঞ্জপূর্ণ।
মহাপরিচালক আরও জানান যে, করোনা মোকাবিলায় বৈশ্বিক পদক্ষেপ পর্যালোচনার জন্য ইউরোপীয় ইউনিয়নের একটি প্রস্তাব মে মাসে ডব্লিউএইচও’র সদস্য রাষ্ট্রগুলো সর্বসম্মতিক্রমে গ্রহণ করেছিল।
২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে করোনাভাইরাসের প্রথম সংক্রমণ শনাক্ত হয়। এরপর তা বৈশ্বিক মহামারিতে রূপ নেয়। আন্তর্জাতিক জরিপ পর্যালোচনাকারী সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য অনুসারে, বৃহস্পতিবার পর্যন্ত বিশ্বে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১ কোটি ২২ লাখ ছাড়িয়ে গেছে এবং মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৫৩ হাজারের বেশি মানুষের।

 





আরও পড়ূন বাংলা ট্রিবিউনে

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

%d bloggers like this: