এক লাখ টাকা বিক্রি হয় ১৫ হাজার টাকায়!

জাল টাকা উদ্ধার

৬৫ লাখ জাল টাকা ও টাকা তৈরির সরঞ্জামাদিসহ ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের সাইবার এন্ড স্পেশাল ক্রাইম বিভাগ। মঙ্গলবার (২৯ সেপ্টেম্বর) ডিএমপির মিডিয়া সেন্টারে ডিবির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার এ কে এম হাফিজ আক্তা সংবাদ সম্মেলনে এই তথ্য জানান।

গ্রেফতার ব্যক্তিরা হলো, ইউসুফ আলী, আব্দুর রহীম ওরফে হেলাল হোসেন রহীম, ফজলে রাব্বি মিয়া ও জাহিদ ইসলাম। তাদের কাছ থেকে জাল নোট, ডেল ল্যাপটপ, কালি, দুটি কালো প্রিন্টার, জাল নোট তৈরির চার বান্ডিল কাগজ, ১০ পাতা নিরাপত্তা সুতা, জাল নোট তৈরির ডাইস দুইটা, কাটার চারটা, ফেবিকল আঠা উদ্ধার করা হয়।

জাল টাকা উদ্ধার

ডিএমপির অতিরিক্ত কমিশনার বলেন,  প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃত জানায় তারা বড় কোনও উৎসব যেমন ঈদ/ দুর্গা পূজা ইত্যাদি অনুষ্ঠানকে টার্গেট করে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় তাদের সহযোগীদের মাধ্যমে জাল টাকা সরবরাহ করে বিক্রয় করে। উৎপাদকের এক লাখ টাকা তৈরি করতে খরচ হয় প্রায় ১০ হাজার টাকা। পাইকারি বিক্রেতার কাছে এক লাখ টাকা ১৪-১৫ হাজার টাকায় বিক্রয় করে। পাইকারি বিক্রেতা প্রথম খুচরা বিক্রেতার কাছে ২০-২৫ হাজার টাকায় বিক্রি করে। আর প্রথম খুচরা বিক্রেতা দ্বিতীয় খুচরা বিক্রেতার কাছে ৪০-৫০ হাজার টাকায় বিক্রি করেন। তিনি মাঠ পর্যায়ে সেই টাকা সমমূল্যে অর্থাৎ এক লাখ টাকায় বিক্রয় করে। মাঠ পর্যায়ে কর্মীরা বিভিন্ন নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য/দ্রবাদি ক্রয়ের মাধ্যমে এই জাল নোট বাজারে ছড়িয়ে পড়ে।

 





আরও পড়ূন বাংলা ট্রিবিউনে

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

%d bloggers like this: