মাস্ক পরায় উৎসাহ দেবে ফেসবুক–ইনস্টাগ্রাম

যুক্তরাষ্ট্রে করোনাভাইরাস সংক্রমণ বেড়েই চলেছে। এ পরিস্থিতিতে বাইরে গেলে মাস্ক পরা উচিত। কিন্তু অনেকেই এ নিয়ম মানছে না। ফেসবুক তাই মানুষকে মাস্ক করার বিষয়ে পরামর্শ দেবে। গতকাল বৃহস্পতিবার ফেসবুকের পক্ষ থেকে এ কথা জানানো হয়।

ফেসবুক কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তাদের ফেসবুকের মূল সাইটের পাশাপাশি ইনস্টাগ্রামেও ব্যবহারকারীরা ফিডের ওপরে একটি সতর্কবার্তা দেখতে পাবেন, যেখানে মাস্ক পরায় উৎসাহ দেওয়া হবে এবং ব্যবহারকারীকে বাড়তি তথ্য দিতে সেন্টারস ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন সাইটে পাঠানো হবে।

মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনবিসি জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রে করোনার সংক্রমণ বাড়তে থাকায় ফেসবুক এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে। জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য অনুযায়ী, দেশটিতে সংক্রমিত রোগী সংখ্যা ২৬ লাখ ৮০ হাজার ছাড়িয়ে গেছে।

করোনার বিস্তার ঠেকানোর প্রচেষ্টা হিসেবে ফেসবুকের এটি সাম্প্রতিক উদ্যোগ। এর আগে গত জানুয়ারিতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা করোনাভাইরাসকে মহামারি হিসেবে ঘোষণা করার পর ফেসবুক এ সম্পর্কিত ভুয়া তথ্য মুছে ফেলার সিদ্ধান্ত নেয়। করোনাভাইরাস সম্পর্কিত কোনো ক্ষতিকর পোস্টে লাইক, কমেন্ট বা শেয়ার করার বিষয়ে গত এপ্রিল মাস থেকে সতর্ক করছে ফেসবুক।

অন্যদিকে, ফেসবুক তাদের সাইটে ঘৃণ্য বক্তব্য না সরানোর জন্য বিজ্ঞাপনদাতাদের ক্ষোভের মুখে পড়েছে। ঘৃণ্য বক্তব্য নিয়ে পাঁচ শ’র বেশি বিজ্ঞাপনদাতা ফেসবুক প্ল্যাটফর্ম বর্জনের ঘোষণা দিয়েছে। কোকা-কোলা, ইউনিলিভার, ফোর্ড, স্টারবাকস, ভেরিজনের মতো বড় প্রতিষ্ঠান গত সপ্তাহে ফেসবুক বর্জনের ঘোষণা দেয়। সিভিল রাইটস গ্রুপের পক্ষ থেকে গত মাসের শুরুতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিতর্কিত পোস্ট নিয়ে কোনো ব্যবস্থা না নেওয়ায় ফেসবুক বর্জনের আহ্বান জানানো হয়।

ফেসবুকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মার্ক জাকারবার্গ বলেছেন, ফেসবুক তার অবস্থান বদলাবে না। শিগগিরই বিজ্ঞাপনদাতারা ফিরে আসবেন। জাকারবার্গ অবশ্য ফেসবুকের বিরুদ্ধে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে আলোচনায় বসতে চেয়েছেন।





সম্পূর্ণ রিপোর্টটি প্রথম আলোতে পড়ুন

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

%d bloggers like this: