বিশ্ব টয়লেট দিবস নিয়ে দুই বন্ধুর মধ্যে জটিলতা!

বিজ্ঞাপনে প্রীতম ও নুহাশনির্মাতা নুহাশ হুমায়ূন ও সংগীতশিল্পী প্রীতম হাসানের মধ্যে বন্ধুতা ক্রমশ জমে উঠছে। যার প্রতিধ্বনি নিয়মিত বাড়ছে। পর্দায় তাদের কর্মকাণ্ড বর্তমান প্রজন্মের মাঝে ব্যাপক সাড়া ফেলছে।
বিশেষ করে ‘খোকা’ ও ‘৭০০ টাকা’র মতো কাজ দিয়ে তারকা বাবার এ সন্তানদ্বয় পেয়েছেন জুটির স্বীকৃতি। তারা দুজন আবারও একসঙ্গে হাজির হয়েছেন। গিয়েছেন উত্তরা ও মিরপুরে মানুষের দ্বারে দ্বারে! নিজেদের মধ্যে এই নিয়ে তৈরি হয়েছে বেশ জটিলতাও।
হ্যাঁ, ১৯ নভেম্বর বিশ্ব টয়লেট দিবস উপলক্ষে এই দুই তারকা গিয়েছিলেন মিরপুর ও উত্তরায়। মূলত মজার আঙ্গিকে বিজ্ঞাপনে হাজির হয়েছেন তারা। এর দুটি সংস্করণে মডেল হিসেবে অংশ নেন প্রীতম ও নুহাশ।
প্রীতম বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘এর আগে আরও একটি বিজ্ঞাপন করেছিলাম। বেশ সাড়া পেয়েছিলাম। এবার এটাতেও আমি ও নুহাশ খুবই ইতিবাচক রেসপন্স পাচ্ছি।’
হারপিকের বিজ্ঞাপনের প্রথমটিতে দেখা যায়, মানুষকে সচেতন করতে নুহাশ যান একটি বাসায়। কিন্তু সেটি প্রীতমেরই বাসা। মূলত পরিশ্রম কমাতে পরিচিতজনের বাসায় হাজির হয়েছিলেন নুহাশ। কিন্তু গিয়ে জানতে পারেন একই প্রতিষ্ঠানের হয়ে একই কাজ করবেন প্রীতমও! ধরা পড়ে যান নুহাশ।

অন্য পর্বে, প্রীতম উত্তরায় গিয়ে দেখেন সেখানের একটি বাসায় আগেই হাজির হয়েছেন নুহাশ। তাকে ভেতরে প্রবেশ করতে না দিয়ে তিনি প্রীতমকে জানান, উত্তরা তার এলাকা।
এরপর এই সংগীতশিল্পী বেছে নেন মিরপুর। কিন্তু জ্যামের কারণে সেখানেও আগে হাজির হয়ে যায় নুহাশ।
প্রীতম জানান, বিশ্ব টয়লেট দিবস উপলক্ষে মজার ছলে বিজ্ঞাপন দুটি তৈরি করেছে হারপিক বাংলাদেশ। মূলত মানুষকে সচেতন করতেই এমন উদ্যোগ।





আরও পড়ূন বাংলা ট্রিবিউনে

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

%d bloggers like this: